কালো ছায়া: পর্ব ৬

Comments · 4 Views

শুভনের চোখ খুশিতে চিক করে উঠলো, অার নিজেও খুশিতে লাফিয়ে উঠে বললঃ "ইউরেকা....... "

কালো ছায়া: পর্ব ৬ (শেষ পর্ব)

শুভনের চোখ খুশিতে চিক করে উঠলো, অার নিজেও খুশিতে লাফিয়ে উঠে বললঃ #ইউরেকা....... পরেরদিন সকাল ১০ টা, শুভনের intelligence office.... শায়লা বেগম অপরাধীর ভঙ্গিতে মাথা নীচু করে বসে অাছেন। এত কিছু ঘটে যাওয়ার পেছনে ওনি নিজেই দ্বায়ী ভাবতেই শ্বাস প্রশ্বাস বন্ধ হয়ে অাসতেছে। এই সামান্য ভুলের জন্য, এত বড় ক্ষতি হয়ে যাবে কখনো ভাবতেই পারেন নি! অতি কষ্টে নিজেকে সামলে শুধু বললেনঃ ----- শুভন সাহেব, অামি নিজেকে ক্ষমা করতে পারছি না! সত্যিই কি অামার ভুল ছিলো?? -- অবশ্যই ম্যাম, যখন অামি অাপনাকে জিজ্ঞেস করেছিলাম "অাপনার পরিবারের ইতিহাস বলুন"? অাপনি সবই বললেন শুধু এই "to the poin" কথাটা এড়িয়ে গেলেন! অার এটাই কাল হয়ে দাঁড়ালো!! ---- এখনতো সেটাইতো দেখতে পাচ্ছি! তবে অামি ভেবেছিলাম অনন্যা সম্পূর্ণ বদলে গেছে কারণ মেইন দরজা বন্ধ করে, চাবি অামার নিকট রাখার পর থেকে অনন্যা অার কোন ঝামেলা পাকাইনি। -- তবে হুট করেই এমন অস্বাভাবিক জীবন থেকে ঝট করে স্বাভাবিক হয়ে যাওয়াটা কিন্তু সন্দেহজনক?? ---- অামিতো বুঝতে পারিনি, অার সেজন্যেই নিজেকে দ্বায়ী মনে হচ্ছে! -- প্রত্যক্ষ না হলেও পরোক্ষভাবে দ্বায়ী! কারণ যখন অাপনি জানতে পারলেন, অনন্যা রাতের বেলা বাসা থেকে চুপিচুপি বের হয়ে বন্ধুদের সাথে অাড্ডা দেওয়া, ড্রাগস্ নেওয়া এবং শেষরাতে বা কখনো কখনো ভোরে বসায় ব্যাক করে, তখনই একটা strong treatment regular checking দেয়া উচিৎ ছিলো!! ---- কিন্তু অামিতো এটা টের পাইছি অারো ৫/৬ মাস অাগে, তারপর ওকে প্রচুর গাইড করেছিলাম, এবং ও স্বীকার করে next time এটা করবে না! তাছাড়া তখন থেকেই main door lock করে চাবিটা অামার কাছে রেখে ঘুমাতাম! -- সাথে এটাও নিশ্চয়ই ভেবেছিলেন, মেইন ডুর লক মানেই ভিতর থেকে কেউ বাহিরে যেতে পারছে না? So all safe?? ---- হুমম ঠিক তাই! -- কিন্তু এটাতো একবার ভাবা উচিৎ ছিলো, যে মেয়েটি regular drugs নিচ্ছে... সে এত সহজে এ লাইন ছাড়তে পারবে না! বিশেষ করে, ও ছাড়লেও নেশা ওকে ছাড়বে না! So যে করেই হোক drugs manage করে শরীরে নিবেই! ---- অামিতো ভাবতেই পারছি না? একই ছাদের নীচে বাস করে টের পেলাম না! -- ওদের planing টাই ছিলো ঘুমের ঔষধের, so টের পাওয়াটা so trapped ছিলো! ---- কিন্তু অাপনি কিভাবে recovery করলেন?? -- এটাই intelligence magic ma'am.... ----- একটু ব্যাখ্যা করুন pls... -- অামি পূর্বেই কিছুটা অাঁচ করেছিলাম, সেটা গতকাল পূর্ণতা পেলো! অাপনার বাসার ভিতরের প্রতিটা সদস্যকে নিয়ে deeply think করি, তারপর একমাত্র depression deferent person find out করি অনন্যাকে। কারণ গত ৫/৬ মাস থেকে ওর চাল চলন একটু ভিন্ন প্রকৃতির, class absent টি প্রচুর, weekly test, monthly test poor condition... বাহিরে খুব কম থাকে, কিন্তু বাসায় উপস্থিতি হরদম। Then ওর ফোন কল ট্র্যাক করে সব তথ্য বের হয়ে অাসে! অনন্যার সাথে ওতোপ্রোতো ভাবে জড়িতে ছিলো, ওরই classmate রাহুল ও বিদ্যুৎ। ওদের দু'জনকে অাটক করার পর চাঞ্চল্যকর তথ্য বেরিয়ে অাসে। অাপনি অনন্যাকে ঠিকই বাসার ভেতর অাটকে রাখতে সামর্থ্য হোন, কিন্তু ওর দুই সহচরী ওকে এমন master plan দেয়, so strange.. ওদের statement শুনে অামার মাথা just hang.. অনন্যাকে ঘুমের medicine supply দিয়েছে ওর দুই সহচরী! অনন্যা কৌশলে খাবারের মধ্যে, পানির জগ, পানির বোতল, কোল্ড ড্রিংক্সে medicine মিশাতো...... ---- (শুভনের কথা কেড়ে নিয়ে, শায়লা বেগম) তাইতো মেয়েটা ডিনারে regular bread/রুটি খেয়েছে, অার সেটাও শুধু ডিম্পোচ, জেলি অার বাটার দিয়ে...!! -- হুমম ম্যাম! তারপর যখন সবাই বিভোর ঘুমের মধ্যে, ঠিক তখন অনন্যা অাপনার রুম থেকে চাবি collect করে এবং দরজা খুলে বাসার ভিতর storeroom এ নেশার বার বসায়তো। অাপনারা কখনো ইহা খুলেন না, অার তারই অসৎ-ব্যবহার হয়েছে!! প্রথম কয়েকদিন শুধু নেশাতে সীমাবদ্ধ ছিলো পরে তা সেক্সে রুপান্তরিত হয়। দুইটি ছেলের সাথে একটি মেয়ে so বুঝতেই পারছেন? regular sex চলতো ওদের মধ্যে তাই অনন্যা birth control injection গ্রহণ করে। কিছুদিন পরে friend সংখ্যা বেড়ে ৩ জন হয়, তখনই sex divert হয়ে অানিকাকে touched করে। ওর দরজাও খোলা থাকতো, সাথে ঘুমের রাজ্যে ডুবে... যা rapist দের জন্যে plus poit ছিলো। ২ মাস পরে, অানিকা হয়তো বুঝতে পারে ওর ভিতর পরিবর্তন হচ্ছে, কারণ তখন ও অন্তঃসত্ত্বা! অথবা কোনও কারণে গত ১ মাস ওঔ দরজা বন্ধ রাখে, অার জেসিয়াও দরজা লক করে ঘুমায়! অার ঠিক তখনই ওরা উপায়ান্ত না পেয়ে, নেশার ঘোরে বিবেক বুদ্ধি খোয়ে অাপনার সাথে....... (শুভন দীর্ঘশ্বাস ছাড়ে) শায়লা বেগম, লজ্জা, ঘৃণা ও নিজের ভুলের অনুতাপে অনেক সময় থেকেই কান্না করে যাচ্ছেন, শুভনের কিইবা করার অাছে এই মুহূর্তে?? তবুও বললঃ -- ম্যাডাম ঠিক অাছেন?? শায়লা বেগম অারো ফুঁপিয়ে উঠলেন! কান্নাটা করতে দিলো শুভন, হয়তো বুকের কষ্টটা দূর হবে নয়তো পাতলা হবে?? অনেক্ষণ চুপচাপ, পুরো অফিসটাতে একদম নিরবতা! পিন পতনের শব্দও ভুমিকম্পর মতো শোনাবে! তারপর শায়লা বেগম বললেনঃ ----- অামার বড় মেয়েটা সুইসাইড করলো কেন?? -- ম্যাডাম, ও বেঁচে থাকলে হয়তো coreect answer পেতাম, bt.......!! তবুও অামি যতটুকু guess করছি, অাপনি ওদের অভিভাবক ছিলেন ঠিকই কিন্তু বন্ধু নয়! ওদের চাহিদাগুলো পূরণ করছেন ঠিকই কিন্তু ভালোবাসা, মায়া- মমতা, স্নেহের অভাব দূর করতে পারেন নি! সারাদিন অফিস, বিজনেস, অার টাকার পেছনে ছুটে, যখন রাতে বাসায় ফিরতেন তখন অাপনি চরম tired.. হয়তো ডিনার করে ঘুমিয়ে গেছেন! অার অাপনার মেয়েদেরকে সবকিছু থেকে বঞ্চিত করেছেন! তাই হয়তো অনন্যা নেশাতে জড়িয়ে যায়, অার অানিকা good girl থাকলেও... পরিবারের সদস্যদের মাঝে এই গ্যাপটির জন্য, ওর অন্তঃসত্ত্বার বিষয়টি অাপনাকে বা পরিবারের অন্য কাউকে share করতে পারেনি, যার দরুন অতি depression থেকে suicide করতে বাধ্য হয়!! (শুভনের অাবারো দীর্ঘশ্বাস) ---- কিন্তু অামারতো, ওদের প্রতি যথেষ্ট অাত্মা বিশ্বাস ছিলো, কি করে পারলো এমনটি করতে?? ওদের জন্যেই এত কষ্ট করে টাকার পাহাড় গড়লাম! নিজের সুখের দিকে বিন্দুমাত্র তাকালাম না, অথচ.... -- ভালোবাসা, স্নেহ, মায়া- মমতার কাছে টাকা তুচ্ছ, অাজতো প্রমাণ পেলেন?? ---- হাড়ে হাড়ে!! মিসেস শায়লা বেগম ধীরেসুস্থে উঠে দাঁড়ালেন এবং মাথা নীচু করে কান্না চোখে বের হয়ে গেলেন! যদিও এসব অঘটন থেকো একটা শিক্ষা পেলেন কিন্তু অনেক কিছু হারিয়ে,, তাই চোখ কান খোলা রেখে সাবধানে advance হতে হয়! "যত গতি তত ক্ষতি"! প্রয়োজনে ৬ষ্ঠ ইন্দ্রিয় দিয়েও মাঝেমধ্যে পথ চলতে হয়।। শায়লা বেগম চলে যেতেই, নির্ঝরা হাজির। সেই বাঁকা ঠোটের মিষ্টি হাসি সাথে কথার চমকঃ -- স্যার অভিনন্দন! ---- thank you, bt কোন ছুটি হবে না! -- (লম্বা ও মিষ্টি স্বরে) স্যার অামি কি সব সময়ই ছুটি নিতেই অাসি?? অামিতো মাঝেমধ্যেই অাপনার magic power এর গল্প শুনতে অাসি। ----- তারমানে এতক্ষণ আড়িপাতা হচ্ছিল?? -- অাবার জিগায়?? কিন্তু স্যার ছোট্র একটা doubt?? ---- কি সেটা?? -- সাদিয়া ম্যাডামের বিষয়টি অামার মাথায় অাসতেছে না?? উনার নিখোঁজ, চিঠি পাঠানো, "প-ভ" সূত্র?? ---- চিঠিটা রাহুল অার বিদ্যুৎ পাঠাইছিলো সাদিয়ার নাম করণ করে, যাতে case divert হয়ে অন্যদিকে মোড় নেয়! -- কি সাংঘাতিক?! কিন্তু সাদিয়া ম্যাডামের নিখোঁজ?? ---- অাচ্ছা বস, বুঝতে পারছি! তুমি পুরো ফিল্ম না দেখে যাবে না!! -- (বসতে বসতে) Thank you sir.. ---- শোন তবে! সাদিয়াও ঘুমের মেডিসিনে অাক্রান্ত হয়, তবে ওর strong body হওয়াতে কাবু করতে একটু বেশি সময় নিচ্ছিলো। cc cam সেট করে যখন বাসায় ঢুকে ততক্ষণে ওর মধ্যেও ৮০% ঘুম ও ক্লান্তভাব চলে অাসে। সাদিয়া ঘুমের ঘোরে ছিল বিদায় বিদ্যুৎ ও রাহুলের বাসার ভিতরে প্রবেশ এবং প্রায় ৩০ মিনিটের মত অবস্থান টেরই পাইনি। সাদিয়া, যখন শায়লা বেগমের রুমে প্রবেশ করে, তার কিছু পূর্বেই রাহুল ও রাজনও(৩য় ব্যক্তি) প্রবেশ করেছে। ওকে দেখে এবং সাদিয়া ওদের দেখে হতভম্ব হয়ে যায়, তবে সাদিয়া ঘুমের ঘোরে ছিল তাই ওরাই অাগে সতেতন হয়ে ওর উপর এ্যাটাক করে পালাক্রমে ধর্.......(শুভনের দীর্ঘশ্বাস ও অশ্রু সিক্ত চোখ) -- sorry sir.. ---- (টিস্যু পেপারে চোখ মুছতে মুছতে) It's ok. কিন্তু তোমারো জানা উচিৎ field intelligence কত টা পরিশ্রম ও ত্যাগের উপর duty করে?? -- জ্বী স্যার, কিন্তু সাদিয়া ম্যা'ম নিখোঁজ হলেন কেন?? ---- ওরা রেপ করার সময়, সাদিয়া অবচেত মনে বিড়বিড়িয়ে বলেছিলো "অামি intelligence এর agent, তোদের অামি ছাড়ব না! ফাঁসিতে ঝুলাবো" বাস, শুয়ারের বাচ্চা গুলো ওর ন্যুড ভিডিও করে, এবং ওকে রুমে ছেড়ে চলে যায়। পরেরদিন যখন সাদিয়া অামাদের অফিসে অাসে ঠিক তখনই ওরা(রাহুলরা) সাদিয়ার মোবাইলে ভিডিও send করে হুমকি দেয় দেখা করার জন্য, নয়তো ভিডিও ভাইরাল করে দিবে!! সাদিয়া ঘাবড়ে যায়, অার ভুলটি করে..... -- (কাঁদো কাঁদো কন্ঠে) স্যার, অার বলবেন না please.. মনের অজান্তেই, দু'জনের চোখই অশ্রুসিক্ত হলো........ অাসামীদের বিচার কার্যক্রম চলছে, অার সাথে rehabbing centre এ চিকিৎসাধীন অাছে.... কল্পনা করা যায়, এমন অল্প বয়স অথচ মরণ নেশাতে মেতে জীবনটা সমাধি সমতূল্য করে নিঃশেষ হয়ে যাচ্ছে... #নোটঃ সন্তানের প্রতি বাবা-মায়ের confidence থাকা ভালো, তবে over confidence নই। সন্তান কোথায় যায়, কার সাথে মিশে?? Real virtual life এর friend's list check করা সহ নানাবিধ খেয়াল রাখা উচিৎ।। অার সন্তানদেরও উচিৎ, বাবা-মায়ের বিশ্বাসকে অক্ষুণ্ন রাখা। এত ত্যাগ ও মহিমার খিয়ানত না করা। সর্বোপরি অামাদের সন্তানদের ইসলামের অালোতে অালোকিত করে কোরঅান ও হাদিসের পথে পরিচালনা করবো,ইনশা_অাল্লাহ্।

(নীল)